সদ্য সংবাদ
Home / গুরুত্বপূর্ণ / সিরাজগঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধা রেজাউল খানের ৭০তম জন্মদিন পালন

সিরাজগঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধা রেজাউল খানের ৭০তম জন্মদিন পালন

নিজস্ব প্রতিবেদক|| যমুনাপ্রবাহ.কম

সিরাজগঞ্জ। সিরাজগঞ্জের কৃতি সন্তান অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী বীর মুক্তিযোদ্ধা প্রকৌশলী রেজাউল খানের ৭০তম জন্মদিন পালন করা হয়েছে। শনিবার (১০ এপ্রিল) রাতে শহরের মুক্তিযোদ্ধা সংসদ রোডে কাটাখালি সেতুর উপর আলোচনা ও কেক কেটে তাঁর জন্মদিন পালিত হয়। এ সময় জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক একরামুল হক, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব অনু সরকার, শিল্পী সূর্য্য বারি, জেলা কালচারাল অফিসার মাহমুদুল হাসান লালন, একাত্তর টিভির জেলা প্রতিনিধি মাসুদ পারভেজ, মুক্তিযোদ্ধা রেজাউল খানের ছেলে অস্ট্রেলিয়ান ইয়ং লেবারের সাবেক নেতা নাজিউল খান (আকিব) ও ভাতিজা প্রফেসর আতাউর রহমান খান (বরাত), বঙ্গমাতা সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক স্বপন চন্দ্র দাস, বঙ্গমাতা সাংস্কৃতিক জোটের শিক্ষা ও পাঠাগার বিষয়ক সম্পাদক উত্তম কুমার, যুবলীগ নেতা আহমেদ সাগর, সালমান, শাকিল প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন।

কেক কাটার পূর্বে সংক্ষিপ্ত আলোচনায় বক্তারা সিরাজগঞ্জের সয়াধানগড়ার কৃতি সন্তান সাবেক ছাত্রলীগ নেতা রেজাউল খানের কর্মময় জীবন ও অসাম্প্রদায়িক চেতনার সংগ্রামে তাঁর ভূমিকা নিয়ে আলোচনা করেন। পরে দেশত্ববোধক ও বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে গান পরিবেশন করেন শিল্পীরা।

প্রসঙ্গত, সিরাজগঞ্জ পৌর এলাকার সয়াধানগড়া গ্রামের সন্তান রেজাউল খান খোকন। প্রগতিশীল মুসলিম পরিবারে সন্তান রেজাউল খান একাত্তরের মহান মুক্তিযুদ্ধে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন। স্বাধীনতার পর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশের ১০ জন ছাত্র নেতাকে রাশিয়ার সমাজ ব্যবস্থা দেখানোর জন্য সফরে পাঠিয়েছিলেন। তার মধ্যে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক জিএস রেজাউল খান ছিলেন অন্যতম। তিনি দীর্ঘদিন ধরে অষ্ট্রেলিয়ায় বসবাস করছেন। তাঁর বড় ভাই মরহুম আকবর আলী খান ছিলেন একজন ভাষা সৈনিক,  তাঁর মেজ ভাই বীর মুক্তিযোদ্ধা খান মোহাম্মদ তারেক ষাটের দশকে পাবনা জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন এবং তাঁর ছোট ভাই বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তাফা কামাল খান বর্তমানে জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তাঁর ভাতিজি জেদ্দা পারভীন রিমি যুব মহিলা লীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তাঁর ছেলে নাজিউল খান আকিব বর্তমানে তিনি ইউনিভার্সিটি অব সিডনিতে অধ্যয়নরত, তাঁর বড় মেয়ে ইঞ্জিনিয়ার ফাতেমা-তুজ জোহরা ইউনিভার্সিটি অব সাউথ অষ্ট্রেলিয়াতে পিএইচডি করছেন এবং তাঁর বড় ছেলে মুনহেমুল খান ইউনিভার্সিটি অব সাউথ অষ্ট্রেলিয়া লেবার ক্লাব এর প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

About jamuna

আবার চেষ্টা করুন

মা ইলিশ ধরার দায়ে ১৬ জেলের কারাদন্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিরাজগঞ্জ যমুনাপ্রবাহ.কম : সিরাজগঞ্জের তিনটি উপজেলায় যমুনা নদীতে মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযানে ১৬ জেলেকে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *