সদ্য সংবাদ
Home / সিরাজগঞ্জ / কাজিপুর / কাজিপুরে ফের বিপদসীমার উপরে যমুনার পানি

কাজিপুরে ফের বিপদসীমার উপরে যমুনার পানি

নিজস্ব প্রতিবেদক || যমুনাপ্রবাহ.কম

সিরাজগঞ্জ: উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢল ও টানা বর্ষণের কারণে যমুনা নদীর পানি সিরাজগঞ্জের কাজিপুর পয়েন্টে বৃদ্ধি পেয়ে বিপদসীমার ৭ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। অপরদিকে সিরাজগঞ্জ পয়েন্টে বিপদসীমার কাছাকাছি চলে গেছে।

বৃহস্পতিবার (১ অক্টোবর) সকালে কাজিপুর পয়েন্টে যমুনা নদীর পানি রেকর্ড করা হয়েছে ১৫ দশমিক ৩২ মিটার। যা বিপদসীমার (১৫.২৫ মিটার) ৭ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। সিরাজগঞ্জ পয়েন্টে রেকর্ড করা হয়েছে ১৩ দশমিক ২৯ মিটার। যা বিপদসীমার ৬ মিটার নিচে রয়েছে।

সিরাজগঞ্জ পাউবো সূত্র জানায়, চলতি বছরের জুনের প্রথম থেকেই যমুনা নদীর পানি সিরাজগঞ্জ ও কাজিপুর পয়েন্টে বাড়তে শুরু করে। গত ২৮ জুন উভয় পয়েন্টেই বিপদসীমা অতিক্রম করে। এরপর ৪ জুলাই থেকে আবার কমতে শুরু করে এবং ৬ জুলাই বিপদসীমার নিচে নেমে যায় যমুনার পানি। ৯ জুলাইয়ের পর ফের বাড়তে থাকে এবং ১৩ জুলাই দ্বিতীয় দফায় বিপদসীমা অতিক্রম করে কাজিপুর ও সিরাজগঞ্জ পয়েন্টে। টানা ২৫ দিন দীর্ঘস্থায়ী বন্যা হওয়ার পর ৭ আগস্ট যমুনার পানি উভয় পয়েন্টেই বিপদসীমার নিচে নেমে যায়। এর মধ্যে কয়েক দফায় যমুনার পানি কমতে ও বাড়তে থাকলেও বিপদসীমা অতিক্রম করেনি। ১৮ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় কাজিপুর পয়েন্টে আবারও বিপদসীমা অতিক্রম করেছে যমুনার পানি। এরপর থেকে যমুনার পানি দুটি পয়েন্টেই হ্রাস-বৃদ্ধি হতে থাকে। ১ অক্টোবর কাজিপুর পয়েন্টে আবারও বিপদসীমা অতিক্রম করলো।

পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) সিরাজগঞ্জের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী একেএম রফিকুল ইসলাম বলেন, টানা বর্ষণের কারণে যমুনায় পানি বাড়ছে। গত ২৪ ঘন্টায় কাজিপুর পয়েন্টে ৯ সেন্টিমিটার ও সিরাজগঞ্জ পয়েন্টে ১০ সেন্টিমিটার বেড়েছে। তবে এটা নিয়ে আতংকের কোন কারণ নেই। বৃষ্টিপাতের কারণেই যমুনাসহ অভ্যন্তরীণ নদীগুলোর পানি বাড়ছে। দু-একদিনের মধ্যে পানি স্থিতিশীল হতে পারে।

 

About jamuna

আবার চেষ্টা করুন

বারুহাসে নৌকার প্রার্থী ময়নুল হকের পক্ষে একাট্টা আওয়ামীলীগ

নিজস্ব প্রতিবেদক যমুনাপ্রবাহ.কম: শস্যভান্ডার খ্যাত চলনবিল অঞ্চলের ঐতিহ্যবাহী ইউনিয়ন বারুহাস। বেহুলার কূপ, বস্তুল শিব মন্দিরসহ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *